যশোরে সাংবাদিক হামলার আসামি সাকিব গ্রেফতার

108
এস. এম. শফিক, যশোর (৭১৮) প্রতিনিধি:
এনটিভি যশোর অফিসের ক্যামেরা পারসন শামীম রেজার ওপর হামলার ঘটনায় কোতয়ালি মডেল থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ হামলাকারী সন্ত্রাসী বখতিয়ার আহম্মেদ সাকিবকে গ্রেফতার করেছে। তিনি শহরের কাজীপাড়া আমতলা মোড়স্থ পুরাতন কসবার সেলিমের ছেলে।
উল্লেখ্য যে, গতকাল সোমবার (১৯ এপ্রিল) বিকেলে শহরের পুরাতন কসবা এলাকায় তিনি হামলার শিকার হয়েছিলেন । ঐদিন রাতে শামীম রেজা কোতয়ালী মডেল থানায় উপস্থিত হয়ে বখতিয়ার আহম্মেদ সাকিবকে আসামি করে বলেন, বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে তিনি পুরাতন কসবা কাজীপাড়াস্থ তারা ভাড়াবাসায় ফিরছিলেন। পথিমধ্যে ডায়মন্ড প্রেসের মোড়ে তিনি ইফতার কিনতে দাঁড়ান।
এ সময় সেখানে যশোর থেকে প্রকাশিত একটি পত্রিকার একজন সাংবাদিকও ছিলেন। এ সময় সেখানে আসেন কাজীপাড়া সেলিম হোসেন ওরফে বোচা সেলিমের ছেলে সাকিব (৩৫)। তাদের সাথে কথা বলার এক পর্যায়ে সাকিব বলেন, কাল (১৮ এপ্রিল) ৪ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পৌর পরিষদের প্রথম মিটিংয়ে মেয়রকে আজেবাজে কথা বলেছেন।
এ সময় শামীম বলেন, কই আমরা তো সেখানে ছিলাম, কেউ কোনো আজেবাজে কথা বলেনি। এরই মধ্যে সেখান থেকে চলে যান স্থানীয় পত্রিকার ওই সাংবাদিক। এ সময় সাকিব তার উদ্দেশ্যে তেড়ে আসেন। তুই বড় সাংবাদিক হয়েছিস! এই কথা বলে তাকে গালিগালাজসহ চড় থাপ্পর মারতে শুরু করে। এক পর্যায়ে লোহার রড এনে মারপিট শুরু করেন এবং তার মোটরসাইকেলটির সামনের অংশ ও তেলের ট্যাংক ভেঙে দেয়।
এদিকে খবর পেয়ে সাংবাদিকরা দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে যান এবং শামীমকে উদ্ধার করে নিয়ে থানায় নিয়ে যান। সেখান অভিযোগ দেয়া শেষে শামীমকে হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা দেয়া হয়।
যশোর টিভি জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের আহবায়ক সাকিরুল কবীর রিটন বলেন, আহত শামীম রেজাকে হাসপাতাল থেকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। সাংবাদিকদের উপর হামলা একটি জঘন্য ঘটনা ও নিন্দনীয় ঘটনা। এর সাথে জড়িতদের দ্রুত আটক পূর্বক বিচারের মুখোমুখি করার দাবি জানাচ্ছি।
থানায় মামলা হওয়ায় মঙ্গলবার (২০ এপ্রিল) সকালে তার বাড়ি থেকে বখতিয়ার আহম্মেদ সাকিবকে কোতয়ালী মডেল থানার এসআই সেকেন্দার আবু জাফর গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করে।