দেশের সব কওমি মাদরাসাসহ স্কুল-কলেজ খুলে দেওয়ার দাবি চরমোনাই পীরের

2

স্বাস্থ্যবিধি মেনে দ্রুত সময়ের মধ্যে দেশের সব কওমি মাদরাসাসহ স্কুল-কলেজ খুলে দেওয়ার দাবি জানিয়েছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই। মঙ্গলবার (১৮ আগস্ট) এক বিবৃতিতে চরমোনাই পীর বলেন, দেশের সবকিছুই ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হয়ে আসছে। অফিস-আদালত, হাট-বাজার, কল-কারখানা, ব্যাংক-বীমা সবই স্বাভাবিকভাবে চলছে। এ ক্ষেত্রে কওমি মাদরাসার কিতাব বিভাগসহ স্কুল-কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসও খুলে দেওয়ার ব্যবস্থা সরকারকে করতে হবে। দীর্ঘ দিন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় ছাত্র-ছাত্রীরা অপূরণীয় ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে। এমতাবস্থায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার শর্তে কওমি মাদরাসাসহ সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দিয়ে পড়ালেখার স্বাভাবিক পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে সরকারকে উদ্যোগ নিতে হবে।
তিনি বলেন, সরকার যদি দ্রুত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো খুলে না দেয় তাহলে দেশের শিক্ষার্থীদের একটি বড় অংশ শিক্ষাধারা থেকে পুরোপুরি ঝরে যেতে পারে, অনেকে শিক্ষার্থী বিপথগামী হতে পারে। যা দেশের ভবিষ্যতের জন্যে অপূরণীয় ক্ষতির কারণ হবে।
তিনি আরও বলেন, ইতিমধ্যে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনেই কোরআন-হাদিস চর্চার কেন্দ্রস্থল কওমি মাদরাসাগুলো পরিচালনার ব্যাপারে দেশের শীর্ষ ওলামায়ে কেরাম সরকারকে আশ্বস্ত করেছেন। করোনা মহামারির কারণে দেশের প্রায় ২২ হাজার কওমি মাদরাসার ২৫ লক্ষাধিক শিক্ষার্থী গত শিক্ষাবর্ষের বার্ষিক পরীক্ষা দিতে পারেনি। ফলে কওমি ছাত্র-ছাত্রীরা সীমাহীন ক্ষতির মুখে পড়ে। এমতাবস্থায় সকল শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যৎ রক্ষায় অবিলম্বে সব ধরনের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া জরুরি। আশা করি সরকার বিষয়টি যথাযথ গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনা করবে।