এবার খেলোয়াড়ের চরিত্রে বিদ্যা

4

যেকোনো চরিত্র পর্দায় জীবন্ত হয়ে ওঠে বিদ্যা বালানের অভিনয়গুণে। ডার্টি পিকচার–এ সিল্ক স্মিতা, শকুন্তলা দেবীর পর আবার তিনি এক বায়োপিকে আসতে চলেছেন। এবার এক খেলোয়াড়ের বায়োপিকে দেখা যেতে পারে বিদ্যাকে। ডার্টি পিকচার ছবিতে সিল্ক স্মিতার চরিত্রে অনন্য অভিনয় করেছিলেন বিদ্যা। এই চরিত্রে তাঁর সাহসী অভিনয় রীতিমতো ঝড় তুলেছিল। অত্যন্ত জনপ্রিয় গণিতবিদ, ‘মানব কম্পিউটার’ শকুন্তলা দেবীর চরিত্রে তিনি মিলেমিশে এক হয়ে গিয়েছিলেন। কিছুদিন আগে আমাজন প্রাইম ভিডিওতে মুক্তিপ্রাপ্ত এই ছবিতে বিদ্যার অভিনয় দারুণভাবে প্রশংসিত হয়। আবারও সবার মন জয় করতে এবার তিনি আসতে চলেছেন এক মহিলা ভারোত্তোলকের চরিত্রে। জনপ্রিয় ভারতীয় ভারোত্তোলক কর্ণম মল্লেশ্বরীর বায়োপিকে দেখা যেতে পারে বিদ্যাকে। এ বছরের জুন মাসে অলিম্পিক পদকজয়ী কর্ণম মল্লেশ্বরীর ওপর বায়োপিক নির্মাণের ঘোষণা আসে। সঞ্জনা রেড্ডি এই বায়োপিক পরিচালনা করতে চলেছেন। ছবিটির নির্মাতারা এখন চিত্রনাট্য এবং কাস্টিং প্রক্রিয়া নিয়ে ব্যস্ত। খবর অনুযায়ী, কর্ণম মল্লেশ্বরীর চরিত্রের জন্য নির্মাতারা বিদ্যা বালানের সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন। আর তাঁরা মনেপ্রাণে বিদ্যাকেই চাইছেন। এ মুহূর্তে বিদ্যা ছাড়া দ্বিতীয় কোনো অভিনেত্রীর কথা ভাবছেন না নির্মাতারা। তাঁদের মতে, মল্লেশ্বরীর চরিত্রের জন্য বিদ্যা একদম উপযুক্ত। জানা গেছে, প্রথমেই বিদ্যাকে তাঁরা ছবির পাণ্ডুলিপি পাঠিয়ে দিয়েছেন। আর এই বলিউড অভিনেত্রীও ছবিটি করার জন্য উৎসাহ দেখিয়েছেন। তবে তিনি এখনো সবুজ সংকেত দেননি। মল্লেশ্বরীর জন্মদিনে নির্মাতারা এই ছবির কথা ঘোষণা করেছিলেন। আর তার সঙ্গে একটি পোস্টারও প্রকাশ করেছিলেন তাঁরা। এই পোস্টারের ট্যাগলাইন ছিল, ‘একটি মেয়ের সফর, যিনি রাষ্ট্রকে অন্য উচ্চতায় পৌঁছে দিয়েছেন।’